এই ক্রিকেটার কি পারবে মোস্তাফিজের শূন্যতা পূরণ করতে?

অনাহুত চোটের আঘাতে আফগানিস্তানের বিপক্ষে খেলতে পারছেন না মোস্তাফিজুর রহমান। এই খবর পুরোনো। তার বদলে আবুল হাসান রাজুকে দলে নিয়েছেন নির্বাচকরা। এই খবরও নতুন নয়; নতুন হলো এই প্রশ্ন— মোস্তাফিজের শূন্যতা কি আবুল হাসান পূরণ করতে পারবেন?

অভিষেক টেস্টে দশ নম্বরে ব্যাটিংয়ে সেঞ্চুরি করে হৈচৈ ফেলে দেয়া এই পেসার সর্বশেষ টি-টোয়েন্টি খেলেছেন ২০১২ সালে। সব মিলিয়ে চারটি টি-টোয়েন্টি খেলেছেন তিনি। নিতে পেরেছেন মাত্র দুটি উইকেট। এই রকম বোলিং ইতিহাস যার, তিনি টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের এক নম্বর বোলারের অভাব কিভাবে পূরণ করবেন, তা নিয়ে প্রশ্ন থাকেই।

এই প্রশ্নটা আরো বড় হয়ে ওঠে তার ওয়ানডে রেকর্ডের কারণে। বিশেষজ্ঞ বোলার হিসেবে সাতটা ওয়ানডে খেললেও একটি উইকেটও নিতে পারেননি তিনি। এই রেকর্ড বিশ্বের আর কোনো ‘বিশেষজ্ঞ বোলারের’ আছে কিনা, এ নিয়ে আছে জোর সন্দেহ।

ঘরোয়া পর্যায়েও আবুল হাসান রাজু তেমন কোনো বোলার নন। সর্বশেষ বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) তিনি খেলেছেন সিলেট সিক্সার্সে। দলের হয়ে ১০ ম্যাচে ১০টি উইকেট নিতে পেরেছেন তিনি। ইকোনমি রেট ছিলো ৮.১৩, গড় ২৪-এর উপরে।

তারপরও তার উপর কেনো ভরসা। কদিন আগে এমন প্রশ্ন করা হয়েছিলো প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীনকে। উত্তরে তিনি বলেন, ‘তাকে নিয়ে আমাদের বিশেষ পরিকল্পনা আছে। এ ছাড়া তার ব্যাটিং সক্ষমতাও ভালো। সব মিলিয়ে আমাদের মনে হয় সে ভালো কিছু করতে পারবে।’

মোস্তাফিজের বিকল্প হিসেবে আফগানিস্তান সিরিজে রাজুকে অন্তর্ভুক্ত করার পর তার বিষয়ে প্রধান নির্বাচক বলেন, ‘আমরা যখন আফগানিস্তান সিরিজের জন্য দল ঘোষণা করি, তখনই তাকে স্ট্যান্ডবাই হিসেবে রাখা হয়েছিলো। যদি কোনো পেসারের সমস্যা হয়, তাহলে তাকে নেয়া হবে; এমন পরিকল্পনা আগে থেকেই ছিলো। সে স্লোয়ারটা ভালো পারে। আইপিএলে দেখেছি, উইকেটে ঘাস থাকে। এই সিরিজেও থাকতে পারে, সে বিবেচনাতেই ওকে দলে নেয়া হয়েছে।’