গোপন ক্যামেরায় ফিক্সিং কলঙ্কে ভারত পাকিস্তানের দুই ক্রিকেটার!

ক্রিকেট থেকে স্পট ফিক্সিং কলঙ্কের দাগ মোছন করাই যাচ্ছে না। এবার স্পট ফিক্সিং কলঙ্কের অভিযোগে জড়িয়ে পড়লেন পাকিস্তান ও ভারতের সাবেক দুই ক্রিকেটার। বাজিকর-জুয়াড়িদের দৌরাত্ম কমানো যেখানে উঠে পড়ে লেগেছে আইসিসি সেখানে আবার নতুন করে কলঙ্কে জড়িয়ে পড়লেন পাকিস্তান ও ভারতের সাবেক দুই ক্রিকেটার।

কাতার ভিত্তিক চ্যানেল আল জাজিরার গোপন ক্যামেরায় পাকিস্তান জাতীয় দলের হয়ে খেলা সাবেক ক্রিকেটার হাসান রাজা ও ভারতের রাজ্য ক্রিকেটার রবিন মরিস ফেঁসে যান। রবিন মরিসকে কাতার ভিত্তিক চ্যানেল আল জাজিরার গোপন ক্যামেরায় টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টের স্পট ফিক্সিং নিয়ে আলোচনা করতে দেখা যায়। ঠিক তার পাশেই পাকিস্তানের হয়ে মাত্র ১৪ বছর বয়সে টেস্টে অভিষেক হওয়া হাসান রাজা বসে ছিলেন।

অবশ্য হাসান রাজাকে মোরিসের আলোচনা কথা বলেত দেখা যায়নি। ২০০৭-০৮ সালে ভারতের অনুষ্ঠিত নিষিদ্ধ টি-২০ টুর্নামেন্ট ইন্ডিয়ান ক্রিকেট লিগে এ দু’জনই মুম্বাই চ্যাম্পসের হয়ে খেলেছিলেন।পরবর্তীতে আল জাজিরার পরিচয় দিয়ে অভিযোগ সম্পর্কে জানতে চাইলে হাসান রাজা স্বীকার করেননি। পাশাপাশি চতুর স্বভাবের মরিস ‘সব কিছু অস্বীকার করেন’।

চ্যানেলটি জানান, তাকে অডিশনের জন্য আমন্ত্রণ করে এবং বিনোদনমূলক বানিজ্যিক ছবি তৈরি করার জন্য অভিনয় করেন।চ্যানেলটি আগামী রোববার এই ভিডিও অনুসন্ধানী তথ্যচিত্র হিসেবে সম্প্রচার করবে।

যেখানে দেখা যাবে টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টের জন্য মরিস স্পট ফিক্সিং ও বেটিং নিয়ে আলোচনা করবেন। সে জানান, ‘এ’ গ্রেডের ক্রিকেটাররা এতে জড়িত থাকবে। তবে বি, সি ও ডি ক্যাটাগরির ক্রিকেটারও থাকবে। সাধারণত তিনি দুবাই, হংকং, জিম্বাবুয়ে ও শ্রীলঙ্কার টুর্নামেন্টগুলোর প্রতি তার আগ্রহ প্রকাশ করতে দেখা যায়।