অপেক্ষার পালা শেষ, অবশেষে জাতীয় দলের নতুন স্কোয়াডে একসাথেই ফিরছেন সাব্বির-সৌম্য!

অবশেষে জাতীয় দলের নতুন স্কোয়াডে-টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট স্ট্রাইক রোটেট করে খেলা টাই আসল যখন দরকার বাউন্ডারি কিংবা লংঅনের উপর দিয়ে ছক্কা মেরে স্কোর বাড়ানোর। এমনটা যারা করে থাকেন তাদের মধ্যে একজন সাব্বির রহমান,টুডেবরিশাল টি-টোয়েন্টি স্পেশালিস্ট হিসেবে দলে আসলেও জাতীয় দলের হয়ে খেলছেন না অনেকদিন।

তবে এবার স্বস্তির খবর এশিয়া কাপের বিবেচনায় থাকতে পারেন সাব্বির সাব্বির। শুধু সাব্বির না এই তালিকায় আছেন সৌম্য সরকার ও সাইফুদ্দিন।

ব্যাকআপ প্লেয়ার হিসেবে এশিয়া কাপে থাকবেন সাব্বির-সৌম্য। বছর তিনেক আগে জাতীয় দলে খেলা সাব্বিরকে নিয়ে এশিয়া কাপের আভাস দিয়ে রাখলেন ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটির চেয়ারম্যান জালাল ইউনুস।

দলে একের পর এক ইনজুরির কারণে দল থেকে ছিটকে যাচ্ছেন সিনিয়র খেলোয়াড়রা তাদের জায়গা পূরণ করতে বিসিবিকে সার্চলাইট আনতে হবে অনেক ক্রিকেটারকে টুডেবরিশাল।

এশিয়া কাপের ঘন্টা ইতিমধ্যে বাজতে শুরু করছে ভারত পাকিস্তান তাদের দল ঘোষণা করে দিয়েছে। হয়তো বাংলাদেশও দল ঘোষণা করে দিত তবে সিনিয়রদের ইনজুরিতে বিসিবিকে অন্য অপশনে নজর দিতে হচ্ছে।

আর সেখানে টি-টোয়েন্টি স্পেশালিস্ট সাব্বির রুম্মানকে বিবেচনায় রাখা হয়েছে বলে মন্তব্য করেন জালাল ইউনুস। সাব্বিরের পাশাপাশি সৌম্যকেও ফেরানোর ইঙ্গিত দিয়ে রাখলেন ইউনুস,এবার সাইফুদ্দিনও ফিরতে পারেন।

এক বছর আগে জাতীয় দলের জার্সি গায়ে জরালেও অভিজ্ঞতার খাতিরে এশিয়া কাপের ব্যাকআপ ক্রিকেটার হিসেবে দলের নজরে থাকবে এই ব্যাটার।

সাব্বির-সৌম্য ও সাইফুদ্দিনের ফেরাটা বাংলাদেশের জন্য বেশ স্বস্তি দেবে বলে আশা করা যায়। টুডেবরিশাল সাব্বিরের টি-টোয়েন্টি অভিজ্ঞতা আর পাওয়ার হিটিং এশিয়া কাপে দারুণ কাজে দিতে পারে।

লিটন দাসের না থাকায় বাড়তি একজন ওপেনারের খোঁজ করবে বিসিবি সেখানে হয়তো সৌম্য সরকার বিবেচিত হতে ও পারে এই দুই অভিজ্ঞ ব্যাটার দলে আসলে আফিফ-শান্তদের অনেকাংশে চাপ কমে যাবে বলে ধারণা করা যায়।

সূত্রঃ sports and news