এক বছরের সাজা থেকে বাঁচতে ৫ বছর আত্মগোপনে

এক বছরের সাজা থেকে বাঁচতে ৫ বছর আত্মগোপনে ঢাকা ব্যাংকের অর্থ আত্মসাতের মামলায় এক বছরের সাজা থেকে বাঁচতে পাঁচ বছর পালিয়েও রেহাই পেলেন না বগুড়ার ব্যবসায়ী মাহবুবুল আলম (৬০)। সদর থানা পুলিশ শনিবার রাতে ঢাকার ফার্মগেট এলাকায় ভাড়া বাসা থেকে তাকে গ্রেফতার করেছে।এসআই জাকির আল আহসান জানান, রোববার বিকালে তাকে আদালতের মাধ্যমে বগুড়া জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

পুলিশ জানায়, মাহবুবুল আলম বগুড়া শহরের বড়গোলা লালমাটি ঘাট লেনের মৃত মছির উদ্দিন আহম্মেদের ছেলে। শহরের বড়গোলা এলাকায় তার মেসার্স হাজী বাবলু নামে রড ও সিমেন্টের ব্যবসা ছিল। ব্যবসার কারণে আলম বিভিন্ন ব্যক্তি ও ব্যাংকের কাছে দেড় কোটি টাকা ঋণ নিয়ে আত্মসাৎ করেন। তার বিরুদ্ধে আদালতে এ সংক্রান্ত চারটি মামলা বিচারাধীন রয়েছে।

এর মধ্যে ঢাকা ব্যাংক লিমিটেড বগুড়া শাখার মামলায় আদালত তাকে এক বছর সশ্রম কারাদণ্ড ও ৮০ লাখ টাকা জরিমানা করেন। ২০১৭ সালে রায় হওয়ার পর ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ফেলে আলম আত্মগোপন করেন। তিনি ঢাকার ফার্মগেট এলাকায় ভাড়া বাড়িতে পরিবার নিয়ে গত পাঁচ বছর বসবাস করছিলেন।

সদর থানার এসআই জাকির আল আহসান জানান, তথ্যপ্রযুক্তির মাধ্যমে সাজাপ্রাপ্ত আসামি ব্যবসায়ী মাহবুবুল আলমের অবস্থান নিশ্চিত হওয়া যায়। শনিবার রাতে ঢাকার ফার্মগেট এলাকার ভাড়া বাড়িতে অভিযান চালিয়ে চারটি মামলার ওয়ারেন্টমূলে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাকে বগুড়ায় আনার পর রোববার বিকালে আদালতে হাজির করা হয়। শুনানি শেষে আদালত তাকে বগুড়া জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন।jugantor