‘ছাত্রলীগের সম্মেলনের সিদ্ধান্ত ওবায়দুল কাদেরের ব্যক্তিগত, প্রধানমন্ত্রীর নয়’

দ্রুত সময়ের মধ্যে ছাত্রলীগের সম্মেলনের তারিখ ঘোষণা করার জন্য সংগঠনটি শীর্ষ দুই নেতাকে নির্দেশ দিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

তবে ছাত্রলীগের সভাপতি আল নাহিয়ান খান জয় ও সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্যের দাবি, সম্মেলনের সিদ্ধান্ত ওবায়দুল কাদেরের ব্যক্তিগত, এটা প্রধানমন্ত্রীর সিদ্ধান্ত নয়।

শনিবার দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যানটিনে সম্মেলনের তারিখ জানতে চাওয়া হলে সংগঠনের কেন্দ্রীয় নেতাদের এই কথা বলেন জয়-লেখক।

জানা গেছে, বেলা ১২ টার দিকে মধুর ক্যানটিনে আসেন জয় ও লেখক। সেখানে উপস্থিত কয়েকজন কেন্দ্রীয় নেতা তাদের কাছে জানতে চান সম্মেলনের তারিখ কবে ঘোষণা করা হবে।

তখন জয় লেখক বলেন, প্রধানমন্ত্রী নির্দেশ দিলে সম্মেলন করা হবে। তখন কেন্দ্রীয় নেতারা বলেন প্রধানমন্ত্রী তো ওবায়দুল কাদেরের মাধ্যমে সম্মেলন করার নির্দেশ দিয়েছেন।

তখন জয় লেখক বলেন, ‘ছাত্রলীগের সম্মেলনের সিদ্ধান্ত ওবায়দুল কাদেরের ব্যক্তিগত, প্রধানমন্ত্রী নয়।’

পরে কেন্দ্রীয় নেতাদের তোপের মুখে সম্মেলনের বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী নির্দেশ দিয়েছেন বলে তারা স্বীকার করে নেন। এ সময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন ছাত্রলীগের সহসভাপতি সৈয়দ আরিফ, সোহান খান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান ইমরান; উপপ্রশিক্ষণ সম্পাদক মেশকাত হোসেন প্রমুখ।

ছাত্রলীগের উপ-প্রশিক্ষণ সম্পাদক মেশকাত হোসেন বলেন, এই কমিটির মেয়াদ শেষ হয়ে গেছে, কিন্তু তারা সম্মেলন দিচ্ছে না। প্রধানমন্ত্রী নির্দেশ দেওয়ার পরেও তারা সম্মেলন পেছানোর চেষ্টা করছে। আজকে মধুর ক্যানটিনে তাদের অবরুদ্ধ করেছিলাম। পরে তারা দ্রুত সম্মেলনের তারিখ ঘোষণা করা হবে বলে জানিয়েছে।

ছাত্রলীগের সহসভাপতি সৈয়দ আরিফ হোসেন দেশ রূপান্তরকে বলেন, পার্টির সেক্রেটারি সম্মেলনের তারিখ ঘোষণার নির্দেশ দেওয়ার পরেও কেন তারিখ দেওয়া হচ্ছে না এমন প্রশ্নে জয়-লেখক বলে সম্মেলনের সিদ্ধান্ত ওবায়দুল কাদেরের ব্যক্তিগত, এটা প্রধানমন্ত্রীর সিদ্ধান্ত না। পরে আমাদের তোপের মুখে তারা স্বীকার করে এটা প্রধানমন্ত্রীর সিদ্ধান্ত।

তিনি বলেন, আজকে আমরা আওয়ামী লীগের সেক্রেটারি ওবায়দুল কাদেরের সঙ্গে দেখা করে বিস্তারিত বলব। দ্রুত যাতে সম্মেলনের তারিখ ঘোষণা করা হয় সেই জন্য আবারও বলতে বলব।

এ বিষয়ে ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের বক্তব্য নিতে তাদের ফোনে একাধিকবার কল দেওয়া হলেও তাদের পাওয়া যায়নি।

উৎসঃ দেশ রুপান্তর