অবশেষে সেই টিটিইকে বরখাস্তের আদেশ প্রত্যাহার!

সেই টিটিইকে বরখাস্তের আদেশ প্রত্যাহার-রেলের ভ্রাম্যমাণ টিকিট পরীক্ষক (টিটিই) শফিকুল ইসলামকে বরখাস্তের আদেশ প্রত্যাহার করেছে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। রোববার দুপুর ১২টায় ঈশ্বরদী রেলওয় জংশনে এক সংবাদ সম্মেলনে এ ঘোষণা দিয়েছেন পাকশি বিভাগীয় রেলওয়ে ম্যানেজার (ডিআরএম) শাহিদুল ইসলাম।

একই তথ্য দিয়ে রেলমন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজন জানিয়েছেন, পাকশীর বিভাগীয় বাণিজ্যিক কর্মকর্তা (ডিসিও) নাসির উদ্দিনকে শোকজ করা হবে। রোববার দুপুরে রেল ভবনে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে এ তথ্য জানান রেলমন্ত্রী। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে রেলমন্ত্রীর আত্মীয় পরিচয় দেওয়া তিন যাত্রীকে বিনাটিকিটে রেল

ভ্রমণের দায়ে জরিমানা করেন টিটিই শফিকুল ইসলাম। আন্তঃনগর সুন্দরবন এক্সপ্রেস ট্রেনের এসি কামরায় চড়ে ঢাকায় ফিরছিলেন তারা। পরে বৃহস্পতিবার রাতে ‘যাত্রীর সঙ্গে অসদাচরণের’ অভিযোগে টিটিই শফিকুল ইসলামকে সাময়িক বরখাস্ত করে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। বরখাস্ত হওয়া টিটিই মো. শফিকুল ইসলাম রেলওয়ে

জংশন ঈশ্বরদীর টিটিই হেডকোয়ার্টারের সঙ্গে যুক্ত হন। ঘটনার পর দেশজুড়ে সমালোচনার মুখে পড়েন রেলমন্ত্রী। ওই তিন যাত্রী তার আত্মীয় নন বলে বক্তব্য দেন মন্ত্রী। এরপর পরই জানা যায়, বিনা টিকিটে ট্রেনে উঠে পড়া যাত্রীরা রেলমন্ত্রীর স্ত্রীর নিকটতম আত্মীয়। যাত্রী ইমরুল কায়েসের মা রেলমন্ত্রীর স্ত্রীর মামাতো বোন।

এরইমধ্যে পুরো বিষয়টি তদন্তে শনিবার রেলের পক্ষ থেকে তিন সদস্যের কমিটি গঠন করা হয়। ঘটনার প্রকৃত কারণ খুঁজে বের করতে পাকশীতে আজ ওই তিন যাত্রী ও টিটিইর সঙ্গে কথা বলছেন তদন্ত কমিটির সদস্যরা।jugantor