ফোর মা’র্ডার: ঘু’মের ট্যা’বলেট খা’ইয়ে সবাইকে কু’পিয়ে হ’ত্যা ক’রে ছোট ভাই

ট্যা’বলেট খা’ইয়ে সবাইকে কু’পিয়ে হ’ত্যা ক’রে ছোট ভাই-পারিবারিক দ্ব’ন্দ্বের প্র’তিশোধ নি’তেই এ’নার্জি ড্রিংক স্পি’ডের সঙ্গে ঘু’মের ট্যা’বলেট খা’ইয়ে বড় ভাই, ভাবি, ভা’ইপো ও ভা’ইজিকে চা’পাতি দি’য়ে কু’পিয়ে হ’ত্যা ক’রার কথা স্বী’কার ক’রেছে তার ছোট ভাই রা’য়হানুল ইসলাম।

তবে শিশু মারিয়া কা’উকে চি’নবে না বলে তাকে হ’ত্যা ক’রেনি সে। বুধবার (২১ অক্টোবর) বি’কালে সাতক্ষীরা সি’আইডি অ’ফিসে সংবাদ স’ম্মেলনে এসব তথ্য জানান সি’আইডির খু’লনা বি’ভাগীয় অ’তিরিক্ত ডি’আইজি শেখ ওম’র ফারুক। প্রেস ব্রি’ফিংয়ে তিনি বলেন, বে’কার থাকা ছোট ভাই বা’ড়িতে

বসে বসে খাও’য়া দাওয়া করা’য় বড় ভাবি তাকে ব’কাবকি করে। মন খা’রাপ অ’বস্থায় ঘ’রে বসে রা’তে টিভি দে’খার সময় অ’কারণে বিদ্যুৎ বি’ল উ’ঠছে বলে বড় ভাই শা’হিনুরও তা’কে ব’কা দে’য়। তখন সে তা’দের হ’ত্যার প’রিকল্পনা করে। এরপর স্পি’ডের স’ঙ্গে ঘু’মের ট্যা’বলেট মি’শিয়ে

রা’তে সবা’ইকে খা’ওয়ায়। সবাই ঘু’মিয়ে প’ড়লে গ’ভীর রা’তে ঘরে থা’কা চা’পাতি নি’য়ে তো’য়ালে পরে গা’ছ বে’য়ে ছা’দের ও’পর দিয়ে ঘ’রের মধ্যে প্র’বেশ করে প্রথমে বড় ভাই শা’হিনুরকে কু’পিয়ে হ’ত্যা ক’রে। তা’র হাতের শি’রা কে’টে দেয়। এরপর ভাবি ছা’বিনাকে কু’পিয়ে হ’ত্যা ক’রে।

এসময় শ’ব্দে ভা’ইপো জিহান ও ভা’তিজি তাছনিম জে’গে গে’লে তা’দেরকেও কু’পিয়ে হ’ত্যা ক’রে সে। পরে সে বা’ড়ির পাশের পু’কুরে চা’পাতি ফে’লে দিয়ে গো’সল করে ঘু’মাতে যা’য়। রা’য়হানুলের স্বী’কারোক্তিতে বাড়ি’র পা’শের পুকুর থেকে বু’ধবার হ’ত্যায় ব্য’বহৃত চা’পাতি জ’ব্দ ক’রা হ’য়েছে।

রায়হানুলের ঘর থে’কে তো’য়ালেও জ’ব্দ ক’রা হয়েছে। বুধবার বিকালে রায়হানুলকে ১৬৪ ধা’রায় জ’বানবন্দি নে’য়ার জন্য আ’দালতে পা’ঠানো হ’য়েছে বলে জা’নান অ’তিরিক্ত ডিআ’ইজি। প্রেস ব্রি’ফিংএ সি’আইডির বি’শেষ পু’লিশ সু’পার আ’নিচুর র’হমান উপ’স্থিত ছি’লেন। উল্লেখ্য, গত ১৫

অক্টোবর ভো’র রা’তে সা’তক্ষীরার ক’লারোয়ার খল’শি গ্রামে মাছ ব্যবসায়ী শাহিনুরসহ প’রিবারের ৪ স’দস্যকে কু’পিয়ে ও গ’লাকেটে হ’ত্যা ক’রা হয়। রা’তে শা’হিনুলের শ্বা’শুড়ি ম’য়না খাতুন বা’দি হয়ে ক’লারোয়া থা’নায় অ’জ্ঞাতদের আ’সামি করে হ’ত্যা মা’মলা দা’য়ের ক’রেন। তদ’ন্তের দা’য়িত্ব দেয়া হয়

সিআইডি পু’লিশকে। হ’ত্যার দি’নই জি’জ্ঞাসাবাদের জ’ন্য আ’টক করা হয় নি’হতের ছোট ভাই রা’য়হানুলকে। পরের দিন রা’য়হানুলকে হ’ত্যা মা’মলায় গ্রে’প্তার দে’খিয়ে আ’দালতের মা’ধ্যমে কা’রাগারে পা’ঠানো হয়। পরে রা’য়হানুলকে পু’লিশের রি’মান্ডে নেও’য়া হয়। এ ঘট’নায় আরো ৩ জন’কে গ্রেফ’তার ক’রা হয়েছে।bd24live