হঠাৎই ছন্দপতন! আবার স্টেশনেই ভিক্ষা বৃত্তিতে ফিরলেন রানাঘাটের রাণু!

ভারতের পশ্চিমবঙ্গের রানাঘাট স্টেশন থেকে যেন হুট করেই বলিউডের আকাশে উঠে গিয়েছিলেন স্টেশনের ভিখারি রানু মণ্ডল। সোশ্যাল মিডিয়ায় এক তরুণের পোস্ট করা তার গানের ভিডিও ভাইরাল হতেই রাতারাতি তারকা বনে যান এই নারী।

তবে ভাগ্য সবসময় সহায় হয় না। তাই আবার তাকে ফিরতে হয়েছে সেই রানাঘাট স্টেশনেই, চলতে হচ্ছে আগের মতো মানুষের দয়া-দাক্ষিণ্যে। খবর ভারতীয় গণমাধ্যম এই সময়’র।

জানা যায়, স্বামীর সাথে কাজের সন্ধানে মুম্বাইয়ে এসে অভিনেতা ফিরোজ খানের বাড়িতে দীর্ঘদিন কাজ করেন রানু। সেখানে শুদ্ধ হিন্দি শেখেন। তারপর ফিরে আসেন আবার সেই রানাঘাটে।

গত বছর অতীন্দ্র নামে এক যুবক তার গান রেকর্ড করে সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করলে তা ভাইরাল হওয়ার পর নজরে আসে হিমেশ রেশমিয়ার। তারপর নানা রিয়েলিটি শোতেও ডাক পরে রানুর।

তবে সেই সেনসেশন থেকে আবার আগের অবস্থানে ফিরে গেছেন রানু মন্ডল। কারণ হিসেবে তার দাম্ভিকতা ও দুর্ব্যবহারকে দায়ী করছেন নেটিজেনরা। সামান্য বিখ্যাত হতেই তিনি নিজেকে কেউকেটা ভাবা শুরু করেন। সেলফি তুলতে এলে ‘ডোন্ট টাচ’ বলে চিৎকার করে উঠেন ভক্তদের উদ্দেশ্যে।

ভিখারিদের সম্পর্কেও করেন নানা বাজে মন্তব্য। এরপরই তার সাথে দূরত্ব বাড়তে থাকে বিভিন্ন অনুষ্ঠানের আয়োজদের। ফলে আবার সেই স্টেশন চত্বরেই ফিরে আসতে হলো তাকে।